ইউএস-বাংলার বেঁচে যাওয়া যাত্রী যা বললেন

মার্চ ১২, ২০১৮, ৫:৫৭ অপরাহ্ণ
 
নেপালের রাজধানীর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিধ্বস্ত হওয়া ইউএস-বাংলার বিমানের বেঁচে যাওয়া যাত্রীদের একজন হলেন বসন্ত বহরা। তিনি রাস্বিত আন্তর্জাতিক ট্রাভেলস অ্যান্ড ‍ট্যুরসের একজন কর্মকর্তা।
বিমান দুর্ঘটনার কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন, বিমানটিতে বিভিন্ন ট্রাভেল এজেন্সির ১৬ জন নেপালি ছিলেন। আমরা ট্রেনিংয়ের জন্য বাংলাদেশে গিয়েছিলাম।
তিনি আরও বলেন, বিমানটি ঢাকা থেকে স্বাভাবিকভাবেই ছেড়েছিল। কিন্তু কাঠমান্ডুতে অবতরণের সময় সবকিছু অস্বাভাবিক মনে হচ্ছিল। হঠাৎ বিমানটি কেঁপে ওঠে এবং প্রচণ্ড শব্দ হয়। আমি জানালার পাশে ছিলাম এবং জানালা ভেঙে ফেলি।
বসন্ত বলেন, প্লেন থেকে বের হওয়ার পর যা কিছু ঘটেছে, তার কিছুই মনে নেই আমার। কেউ আমাকে সিনামঙ্গল হাসাপাতালে নেয়। পরে সেখান থেকে আমার বন্ধুরা আমাকে নর্ভিকে নিয়ে আসে।
তিনি বলেন, আমি মাথায় ও পায়ে আঘাত পেয়েছি। কিন্তু আমি ভাগ্যবান, কারণ কঠিন একটা সময় পার করতে হয়েছে।
কাঠমাণ্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিধ্বস্ত হওয়া এই বিমানে ৪ ক্রুসহ ৭১ জন ছিলেন। তাদের মধ্যে ৩৭ জন পুরুষ, ২৭ জন নারী ও দুটি শিশু।
নেপাল পুলিশ জানিয়েছে, এই দুর্ঘটনায় ৩৮ জন নিহত হয়েছেন। এছাড়া ২৭ জন মারাত্মক আহত এবং ১০ জন নিখোঁজ আছেন।rtv

পড়া হয়েছে ৯২ বার

( বি:দ্রঃ আপনভূবন ডটকম -এ প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও, কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। কপিরাইট © সকল সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত আপনভূবন ডটকম )

আপনার ফেসবুক একাউন্ট ব্যবহার করে মতামত প্রদান করতে পারেনঃ