পথচারীদের চিৎকারে বেঁচে গেলেন অর্ধশত বাসযাত্রী!

এপ্রিল ২৮, ২০১৮, ১১:২১ অপরাহ্ণ

হবিগঞ্জের বাহুবলে একটি যাত্রীবাহী বাসে আগুনের ঘটনা ঘটেছে। স্থানীয় লোকজনের চেষ্টায় বড় ধরনের দুর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা পেলেন বাসের অর্ধশত যাত্রী। শনিবার উপজেলার মিরপুর বাজারে শ্যামলী পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাসে এ ঘটনা ঘটে।

বাসচালক ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শনিবার সকাল সাড়ে ১১টায় সিলেটের বিয়ানীবাজার থেকে অর্ধশত যাত্রী নিয়ে ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে আসে শ্যামলী পরিবহনের একটি বাস (ঢাকা মেট্রো-ব-১৫-০৬৩৭)।

পথে শ্রীমঙ্গল-শায়েস্তাগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কের বাহুবল উপজেলার রশিদপুর চা-বাগান এলাকায় বাসটিতে যান্ত্রিক ত্রুটি দেখা দেয়। ত্রুটিপূর্ণ গাড়ি নিয়ে শায়েস্তাগঞ্জ কাউন্টারে মেরামতের জন্য চালক গাড়ি চালাতে থাকলে মিরপুর বাজারে বাসের নিচ থেকে আগুনের ধোঁয়া বের হতে দেখে স্থানীয়রা চিৎকার করলে চালক গাড়ি থামান।

এ সময় স্থানীয় লোকজন ছুটে এসে বালি-পানি ও ফায়ার এক্সটিংগুইসার দিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালান।

খবর পেয়ে শায়েস্তাগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় আগুনের ধোঁয়া দেখে বাসে থাকা যাত্রীরা ভয়ে আতংকিত হয়ে তাড়াহুড়ো করে গাড়ির জানালা দিয়ে লাফ দিয়ে নামতে গিয়ে অনেকেই আহত হন।

তাৎক্ষণিকভাবে আহতদের পরিচয় জানা যায়নি। এ ঘটনায় শায়েস্তাগঞ্জ-মৌলভীবাজার আঞ্চলিক মহসড়কে আধাঘণ্টারও বেশি সময় ধরে যান চলাচল বন্ধ ছিল।

শায়েস্তাগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার জামাল উদ্দীন শাহিন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, স্থানীয় ব্যবসায়ীরা ফায়ার এক্সটিংগুইসার দিয়ে পাউডার ছিটানোর কারণেই বাসটি রক্ষা পেয়েছে। নইলে বাসের আগুন দোকানপাটগুলোতেও ছড়িয়ে গিয়ে বড় ধরনের ক্ষতি হয়ে যেত।

এদিকে খবর পেয়ে বাহুবল মডেল থানা ওসি গোলাম দস্তগীর আহমেদ ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. তারা মিয়া ঘটনাস্থলে এসে যাত্রীদের খোঁজখবর নিয়ে তাদের গন্তব্যে পৌঁছার ব্যবস্থা করে দেন।jugantor

পড়া হয়েছে ১১৯ বার

( বি:দ্রঃ আপনভূবন ডটকম -এ প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও, কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। কপিরাইট © সকল সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত আপনভূবন ডটকম )

আপনার ফেসবুক একাউন্ট ব্যবহার করে মতামত প্রদান করতে পারেনঃ